আয়না আবুল মনসুর আহমদ PDF রিভিউ | Ayna Abul Mansur Ahmed PDF

আয়না আবুল মনসুর আহমদ pdf

বইয়ের নামঃ আয়না
লেখকঃ আবুল মনসুর আহমদ
সম্পাদকঃ ড. নুরুল আমিন
প্রথম প্রকাশঃ ১৯৩৫ ইং
পৃষ্ঠাঃ ১৪৩
জেনারঃ ব্যাঙ্গ রচনা

আবুল মনসুর আহমদ রচিত “আয়না” গ্রন্থে মোট সাতটি গল্প স্থান পেয়েছে।
হুযুর কেবলাঃ গল্পটিতে একজন ভন্ডপীরের ভন্ডামি দেখানো হয়েছে। এমদাদ নামের একজন পীরের মুরিদ হতে গিয়ে ভন্ডামি দেখতে পায়। মজার মজার ভন্ডামি দেখতে গল্পটা পড়তে হবে।

গো-দেওতা-কা দেশঃ এই গল্পে লেখক হিন্দুদের গোমাতার প্রতি কটাক্ষ করেছেন। লেখক ঘুমের মধ্যে স্বপ্নে গরুদের দেশে চলে যান। সেখানে কোনো মানুষ নেই। সেখানে গিয়ে গরুদের কাছে অদ্ভুত সব গল্প শোনেন। কি সেই গল্প! সেটা বই পড়েই জানবেন।

নায়েবে নবীঃ এই গল্পে এক ভন্ড ও সুবিধাভোগী মাওলানার কথা উল্লেখ করেছেন। দুই এলাকার দুই মাওয়ালা সুবিধা ভোগের জন্য নিজেদের মনগড়া মাসয়ালা দেন। মজা পেতে হলে অবশ্যই পড়তে হবে।

এই গল্পটিও মুসলিম সমাজের জাতিগত বিভেদ নিয়ে একটি ব্যাঙ্গ রচনা। হানাফি ও মোহাম্মাদীদের মধ্যকার দ্বন্দ্ব, তার ভিতর থেকে একজন সুবিধাবাদী লোকের উথান ইত্যাদি নিয়ে মজাদার মাল-মসলা সহ।

আরও পড়ুনঃ বাংলা সাহিত্যে প্রবন্ধ রচনা সমগ্র PDF রিভিউ

মুজাহেদীনঃ গ্রামের যুব সম্প্রদায়ের উদ্দোগ্যে যখন সকল মানুষ যখন ভেদাভেদ ভুলে শিক্ষার আলো পাওয়ার আশায় স্কুল খুললো, তখন দুই সুবিধাবাদী ভন্ড মৌলভির কুটবুদ্ধিতে গ্রামে বেধে গেলো তুমুল ঝগড়া। শেষ পর্যন্ত ঝগড়ার ফলাফল কি? স্কুলের কি হলো!!

ইংরেজ সরকারের উপর বিরক্ত ও ক্ষুব্ধ হয়ে দেশ থেকে ইংরেজদের বিতারিত করতে চান লেখক। এমন সময় সন্ধান পেলেন এক বিদ্রোহী গোষ্ঠীর। কি করে সেই গোষ্ঠী? তারা সমাজের প্রচলিত প্রথা ভেঙে ফেলতে চায়। কিভাবে??
পড়লে হাসি আটকাতে পারবেন না

ধর্ম-রাজ্যঃ হিন্দুরা মসজিদের সামনে থেকে বাদ্যযন্ত্র বাজাবে এটা মুসলিম হিসেবে মেনে নেওয়া যায় না। দলে দলে মুসলিমরা এক হয়ে গেলো ধর্ম রক্ষার্থে। হিন্দুরাও পিছপা হবে কেন? তারাও বাদ্যযন্ত্র বাজাবে। ফলে দুই পক্ষের সংঘাত অনিবার্য। কেউ পিছু হটবে না। সবাই চায় ধর্ম যুদ্ধে প্রাণ দিতে। শেষ পর্যন্ত কি হলো! কেন গল্পের নাম “ধর্ম-রাজ্য”!

আরও পড়ুনঃ আমার দেখা রাজনীতির পঞ্চাশ বছর PDF রিভিউ আবুল মনসুর আহমদ

পাঠ প্রতিক্রিয়াঃ

বইটা ক্লাস ৮/৯ এ পড়েছি। অনেকদিন পর আবার পড়লাম। ব্যাঙ্গ রচনা হলেও গল্পের মাঝে সমাজের প্রধান সমস্যাগুলোর প্রতি তীব্র কটাক্ষ করা হয়েছে। “আয়না” বইয়ের প্রায় সব গল্পই ১৯২২ থেকে ১৯২৯ সালের মধ্যে রচিত এবং ‘সওগাত’ পত্রিকায় প্রকাশিত হয়। ধার্মিকতার আবরণে সমকালীন সমাজের যে সব ব্যাধি লেখক দেখেছেন, তারই মুখোস উম্মোচন করেছেন।

প্রতিটি গল্পে হাসির খোরাক থাকলেও হাসির পিছনে একটা কষ্ট থেকে যায়। আবুল মনসুর আহমদের ব্যাঙ্গ রচনার প্রতিভা সম্পর্কে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম এই বইয়ের ভূমিকায় বলেন,

‘ভাষার কান মলে রস সৃষ্টির ক্ষমতা আবুল মনসুরের অসাধারন। আবুল মনসুরের ব্যাঙ্গের একটা অসাধারন বৈশিষ্ট এই যে, সে ব্যাঙ্গ যখন হাসায়, তখন হয় সে ব্যাঙ। কিন্তু যখন কামড়ায়, তখন সে হয় সাপ; আর সে কামড় গিয়ে যার গায়ে বাজে, তার মুখের ভাব হয় সাপের মুখের ব্যাঙের মতই করুন।’

লিখেছেনঃ Imam Abu Hanifa

বইঃ আয়না [ Download PDF ]
লেখকঃ
আবুল মনসুর আহমদ

ইউটিউবে বইয়ের ফেরিওয়ালার বুক রিভিউ পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

আরও পড়ুনঃ বাংলাদেশের কালচার PDF আবুল মনসুর আহমদ বই রিভিউ

Facebook Comments

Leave a Reply